যুক্তরাষ্ট্রে মহাত্মা গান্ধীর ভাস্কর্যে হামলা!

ভারতে আন্দোলনরত কৃষকদের সমর্থন জানাতে ওয়াশিংটনে মহাত্মা গান্ধীর ভাস্কর্যে হামলা চালিয়েছে খালিস্তানি সমর্থকরা। নতুন কৃষি আইনের প্রতিবাদে খালিস্তানি হলুদ পতাকা হাতে বিক্ষোভ দেখায় তারা। গান্ধীর ভাস্কর্যেও খালিস্তানি পতাকা মুড়ে দেওয়া হয়।

ভারতীয় দূতাবাসের পক্ষ থেকে একটি বিবৃতি জারি করে বলা হয়েছে, শনিবার মার্কিন দূতাবাসের সামনে তীব্র বিক্ষোভ শুরু হয়। তারপরেই তাণ্ডব চালায় প্রতিবাদীরা। সরকারি ভাবে দূতাবাসের পক্ষ থেকে বলা হয়েছে, ‘ডিসেম্বরের ১২ তারিখে খালিস্তানি সমর্থকরা গান্ধী মেমোরিয়াল প্লাজার সামনে গান্ধী মূর্তি ভাঙচুর করে। দূতাবাস শক্ত ভাষায় এই ঘটনার নিন্দা করছে। শান্তি ও ন্যায়বিচারের দূত সম্মাননীয় মহাত্মা গন্ধীর মূর্তি ভাঙার ঘটনায় খালিস্তানি সমর্থকরা জড়িয়ে ছিল বলে সন্দেহ করা হচ্ছে।’

সংবাদ সংস্থা সূত্রে খবর, বৃহত্তর ওয়াশিংটন ডিসি এলাকা, মেরিল্যান্ড, ভার্জিনিয়ায় শনিবার আমেরিকার অনেক প্রদেশের মতোই ভারতের বিক্ষোভরত কৃষকদের সমর্থনে প্রতিবাদ সভার আয়োজন করা হয়। কিন্তু সেই আন্দোলন শেষ পর্যন্ত ‘বিচ্ছিন্নতাবাদী শিখ’-দের হাতে চলে যায় বলে খবর পাওয়া গিয়েছে।

আন্দোলনে খালিস্তানের সমর্থনে পতাকা, ব্যানারও দেখা গিয়েছে এই বিক্ষোভে। এই ঘটনার পরই একটি হলুদ রঙের পতাকা দিয়ে গান্ধীর মূর্তি ঢেকে দেয়া হয় বলে সংবাদ সংস্থার দাবি। তারপর বেশ কয়েকটি প্ল্যাকার্ড গান্ধীর মূ্র্তির হাতে ধরিয়ে দেয়া হয়। তারপর ভাঙচুর চালানো হয় মূর্তিতে। ২০০০ সালে এই মূর্তির উদ্বোধন করেছিলেন ভারতের তৎকালীন প্রধানমন্ত্রী অটলবিহারী বাজপেয়ী।