আবারও ট্রাম্পের বিরুদ্ধে দাঁড়ালেন এরদোগান

মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের মধ্যপ্রাচ্য বিষয়ক শান্তি পরিকল্পনার নিন্দা জানিয়েছেন তুরস্কের প্রেসিডেন্ট রেসেপ তাইয়্যেপ এরদোগান। এই পরিকল্পনার মাধ্যমে ইসরায়েলের দখলদারিত্বকেও স্বীকৃতি দেওয়া হয়েছে বলে উল্লেখ করেন তিনি।

তুর্কি সংবাদমাধ্যম জানায়, বুধবার আফ্রিকা সফর থেকে ফিরে বিমানবন্দরে সাংবাদিকদের সঙ্গে কথা বলেন রেসেপ তাইয়্যেপ এরদোগান। তখন তিনি ট্রাম্পের পরিকল্পনা নিয়ে উদ্বেগও প্রকাশ করেন।

তুরস্কের প্রেসিডেন্ট বলেন, মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের তথাকথিত মধ্যপ্রাচ্য বিষয়ক শান্তি পরিকল্পনায় ফিলিস্তিনিদের অধিকার এড়িয়ে যাওয়া হয়েছে। এছাড়া এর মাধ্যমে ইসরায়েলের দখলদারিত্বকে স্বীকৃতিও দেওয়া হলো।

রেসেপ তাইয়্যেপ এরদোগান বলেন, এই পরিকল্পনার মাধ্যমে মধ্যপ্রাচ্যে শান্তি ও সমাধান আসবে না। মুসলমানদের জন্য জেরুজালেম একটি পবিত্র স্থান। অথচ ট্রাম্পের পরিকল্পনায় জেরুজালেমকে ইসরায়েলের কাছে তুলে দেওয়া হয়েছে, যা কোনোভাবেই গ্রহণযোগ্য নয়।

প্রসঙ্গত, ট্রাম্প উত্থাপিত মধ্যপ্রাচ্য শান্তি পরিকল্পনায় ঐতিহাসিক জেরুজালেমের আল-কুদস শহরকে ইসরায়েলি ভূখণ্ডের অন্তর্ভুক্ত করা হয়েছে। আর নিজেদের মাতৃভূমিতে ফিরে যাওয়ার অধিকার থেকে বঞ্চিত করা হয়েছে বিশ্বের বিভিন্ন দেশে বসবাসরত ফিলিস্তিনি শরণার্থীদের।

ফিলিস্তিন নিয়ে ট্রাম্প-নেতানিয়াহুর ষড়যন্ত্র কখনোই বাস্তবায়িত হবে না: আব্বাস

মধ্যপ্রাচ্যে মোতায়েন মার্কিন সেনাদের ওপর হামলা চালানো বন্ধ করবে না বলে জানিয়েছে আফগান সংগঠন তালিবান। সংগঠনটির মুখপাত্র জাবিউল্লাহ মুজাহিদিনের বক্তব্যের বরাতে এ খবর প্রকাশ করেছে তেহরান টাইমস।

সোমবার (২৭ জানুয়ারি) আফগানিস্তানের পূর্বাঞ্চলে একটি মার্কিন সামরিক বিমানে হামলা চালানো হয়। এই হামলার দায় স্বীকার করে তালিবান। এ বিষয়ে সংগঠনটির মুখপাত্র জাবিউল্লাহ মুজাহিদিন বলেন, আমরা মার্কিন বিমানে ক্ষেপণাস্ত্র হামলা চালিয়েছি। হামলায় সামরিক বিমানটি বিধ্বস্ত হয়েছে। এতে নিহত হয়েছেন যুক্তরাষ্ট্রের অনেক সেনা কর্মকর্তা।

জাবিউল্লাহ দাবি করেন, ওই বিমানে মার্কিন গোয়েন্দা সংস্থা সিআইএর (সেন্ট্রাল ইন্টেলিজেন্স এজেন্সি) একজন উচ্চপদস্থ কর্মকর্তা ছিলেন। হামলায় তিনিও নিহত হয়েছেন। আমেরিকা অবশ্য তালিবান মুখপাত্রের এসব দাবি অস্বীকার করেছে।

তবে বুধবার (২৯ জানুয়ারি) আরেকটি বার্তায় মুজাহিদিন বলেছেন, আমাদের ক্ষেপণাস্ত্রে মার্কিন সামরিক বিমান বিধ্বস্তের বিষয়টি এর মধ্যেই প্রমাণিত হয়েছে। এ ব্যাপারে অসংখ্য প্রমাণ পাওয়া গেছে।

মুজাহিদিন জানিয়েছেন, তালিবানের সফল ক্ষেপণাস্ত্র হামলায় মার্কিনিদের মধ্যে ভয় ঢুকে গেছে। তারা আতঙ্কে আছে। তবে আমরা হামলা বন্ধ করব না। মধ্যপ্রাচ্যে তাদের শান্তিতে থাকতে দিব না। আমরা ফের হামলা চালানোর প্রস্তুতি নিচ্ছি।