বিশ্বকাপের আগেই ভারতীয় আম্পায়ারকে বহিষ্কার করলো আইসিসি।

আন্তর্জাতিক ক্রিকেট কাউন্সিলের (আইসিসি) এলিট প্যানেল থেকে ভারতীয় আম্পায়ার সুন্দরম রবিকে বহিস্কার করা হয়েছে।

৩০ মে শুরু হতে যাওয়া বিশ্বকাপে আম্পায়ারের তালিকায় নাম আছে রবির। ২০১৫ সালে আইসিসির এলিট প্যানেলে নাম ওঠেছিল তার। অথচ ইংল্যান্ড বিশ্বকাপের আগেই দুঃসংবাদ পেলেন ৫৩ বছর বয়সী এই আম্পায়ার।

২০১১ সালের অক্টোবরে ভারত ও ইংল্যান্ডের মধ্যকার টি-টোয়েন্টি ম্যাচ নিয়ে আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে আম্পায়ার হিসেবে অভিষেক হয় রবির। দুই মাসের ব্যবধানে ভারত ও ‍ওয়েস্ট ইন্ডিজ মধ্যকার ম্যাচ দিয়ে ওয়ানডে ক্রিকেটে ডেবু হয়।

২০১৩ সালে বাংলাদেশ ও নিউজিল্যান্ডের মধ্যকার চট্টগ্রাম টেস্টে অভিষেক হয় তার। টেস্ট, ওয়ানডে ও টি-টোয়েন্টি মিলে ইতিমধ্যে ৯৩টি আন্তর্জাতিক ম্যাচে আম্পায়ারের দায়িত্ব পালন করেছেন ভারতের কলকাতায় জন্মনেয়া এই আম্পায়ার।

তবে ভারতে চলমান আইপিএলে সুন্দরম রবির সঠিকভাবে দায়িত্ব পালন নিয়ে প্রশ্ন উঠেছে। মুম্বাই ইন্ডিয়ান্স ও রয়েল চ্যালেঞ্জার্স বেঙ্গালুরুর মধ্যকার ম্যাচে লাসিথ মালিঙ্গার করা একটি নো বলের সিদ্ধান্ত দিতে ব্যর্থ হন রবি।

যে কারণে খেলা শেষে প্রকাশ্যেই হাতাশা প্রকাশ করেন বেঙ্গালুরুর অধিনায়ক বিরাট কোহলি। আর এসব কারণেই তাকে আইসিসির এলিট প্যানেল থেকে বহিস্কার করা হয়। আইসিসি এক বিবৃতিতে জানিয়েছে এলিট প্যানেলের সদস্যদের আরও বিচক্ষণ হতে হয়। গত দুই বছর ধরে ১২ জন আম্পায়ার নিয়ে গঠিত এলিট প্যানেলের প্রথম দিকেই ছিল রবির নাম।