করোনা রোগীকে ধর্ষণ করলেন ভুয়া চিকিৎসক

করোনা রোগীকে ধর্ষণ করলেন ভুয়া চিকিৎসক
করোনায় আক্রান্ত এক নারী ধর্ষণের শিকার হয়েছেন বলে অভিযোগ উঠেছে। ঘটনাটি ঘটেছে ভারতের মহারাষ্ট্রের একটি হাসপাতালে কোয়ারেন্টাইন সেন্টারে।

বৃহস্পতিবার (১৬ জুলাই) রাতে ৪০ বছর বয়সী ওই নারীকে ধর্ষণের ঘটনায় একটি মামলা হয়েছে বলে জানিয়েছেন মহারাষ্ট্রের পানভেল থানার পুলিশ কর্মকর্তা অশোক রাজপুত।

মামলায় বলা হয়েছে, করোনার উপসর্গ দেখা যাওয়ার পর অভিযোগকারী ওই নারীকে পানভেলের কোনগাঁওয়ের ইন্ডিয়াবুলস কোয়ারেন্টিন সেন্টারে নিয়ে আসা হয়। ধর্ষণের দায়ে অভিযুক্ত ব্যক্তিকেও সেখানেই রাখা হয়েছিল। গত বৃহস্পতিবার রাতে অভিযুক্ত ব্যক্তি ওই নারীর কক্ষে যায়। সেখানে ওই নারীকে ধর্ষণ করে অভিযুক্ত।

সহকারী পুলিশ পরিদর্শক নীতিন পাগর জানান, ঘটনার দিন সকাল সাড়ে ৭টায় অভিযুক্ত ব্যক্তি ওই নারীর রুমে প্রবেশ করেন এবং তাকে বলেন যে, তিনি একজন ডাক্তার। এরপর অভিযুক্ত তার স্বাস্থ্যের বিষয়ে খোঁজখবর নেন এবং তিনি (নারী) তাকে বলেছিলেন যে, তার শরীরের ব্যথা রয়েছে। অভিযুক্ত জানায়, তার ম্যাসেজ প্রয়োজন। এজন্য তার পোশাক খুলে ফেলা হয়। তারপরে তিনি তাকে ধর্ষণ করেন।

এদিকে এ ঘটনায় কোয়ারেন্টাইন সেন্টারে নারীদের নিরাপত্তা নিয়ে প্রশ্ন তুলেছেন অনেকে। পানভেল পুলিশ অভিযুক্ত ব্যক্তির বিরুদ্ধে ভারতীয় দণ্ডবিধির ৩৭৬ ধারায় মামলা দায়ের করেছে। ঘটনার বিস্তারিত তদন্ত শুরু হয়েছে।
ধর্ষণের দায়ে অভিযুক্ত ব্যক্তি সংক্রমণ থেকে সেরে উঠলেই তাকে গ্রেফতার করা হবে বলে জানিয়েছে পুলিশ।

তথ্যসূত্র : দ্য হিন্দু।

আরও সংবাদ

তরুণ থেকেই আয়াসোফিয়াকে মসজিদে রূপান্তর করা আমার সবচেয়ে বড় স্বপ্ন ছিল: এরদোগান

ইনসাফ টোয়েন্টিফোর ডটকম | নাহিয়ান হাসান

তুরস্কের প্রেসিডেন্ট রজব তাইয়েব এরদোগান বলেছেন, তরুণ অবস্থায় আমার সবচেয়ে বড় স্বপ্ন ছিল আয়াসোফিয়াকে পুনরায় মসজিদ রূপে ফিরিয়ে আনা। এই স্বপ্নের বাস্তবায়নে আমি খুবই আনন্দিত ও অবিভূত। এই সিদ্ধান্তটিকে কারো রাজনৈতিক দৃষ্টিকোণ থেকে দেখা উচিত নয়। কেননা, আয়াসোফিয়াকে পুনরায় মসজিদ রূপে ফিরিয়ে এনে তাতে নামাজ আদায় করা, বর্তমান সরকার ও তুর্কি জনগণের বহুকালের হৃদয়ক্ষরিত আর্তী।

গত শুক্রবার (১৭জুলাই) জুমু’আর নামাজ আদায়ের পর সাংবাদিকদের এক সাক্ষাৎকারে তিনি এই কথা বলেন।

এরদোগান বলেন, ইবাদাতের উদ্দেশ্যে আয়াসোফিয়াকে পুনরায় উন্মুক্ত করা হলো তার (আয়াসোফিয়া) বন্দীদশা থেকে মুক্তিলাভ। দীর্ঘ ৮৬ বছর পর এটিকে জাদুঘর থেকে পুনরায় মসজিদে রূপান্তর করা তুরস্কের অন্যান্য সাধারণ অধিকারগুলোর মধ্যে অন্যতম।

তাছাড়া এটি (পুনরায় মসজিদে রূপান্তর করণ) বর্তমান তুর্কি জনগণের একটি প্রাণের দাবি। আয়াসোফিয়ার ব্যাপারে আন্তর্জাতিক সম্প্রদায় যে সমালোচনা ও বিরোধিতা করছে আমরা তাতে মোটেও বিচলিত নয়। আমাদের কাছে তাদের বিরোধিতার কোনো গুরুত্ব নেই।

তিনি বলেন, আগামী শুক্রবার (২৪ জুলাই) আয়াসোফিয়া মসজিদে অনুষ্ঠিতব্য জুমু’আর নামাজে আমন্ত্রিতদের একটি তালিকা প্রস্তুত করতে ধর্মমন্ত্রনালয়ের প্রধানকে দায়িত্ব দেওয়া হয়েছে। ওই জুমু’আর জামাতে সর্বোচ্চ ১৫০০ মুসল্লীকে অংশগ্রহণের অনুমতি দেওয়া হবে। এছাড়াও করোনা পরিস্থিতিতে দুরত্ব বজায় রেখে আয়াসোফিয়া মসজিদের বাহিরেও অন্যান্যদের জন্য জামাতে অংশগ্রহণের ব্যবস্থা করে দেওয়ার ইঙ্গিত দেন তিনি।

এরদোগান বলেন আয়াসোফিয়াকে মসজিদ রূপে ফিরিয়ে আনা হলো ইতিহাসের একটি ঋণ যা বহু বছর যাবত আমাদের কাঁধে চেপে ছিল। আলহামদু লিল্লাহ, আয়াসোফিয়াকে মসজিদ রূপে ফিরিয়ে দিয়ে আমরা সম্মিলিতভাবে ইতিহাসের ঋণ শোধ করতে পেরেছি। এটি শুধুমাত্র তুরস্কের জন্য নয় বরং গোটা মুসলিম বিশ্বের জন্যই একটি অতি গুরুত্বপূর্ণ সিদ্ধান্ত।

সূত্র: আল জাজিরা